spot_img
Homeঅপরাধশিবচরে ইজিবাইকচোর সন্দেহে গণপিটুনিতে একজনের মৃত্যু

শিবচরে ইজিবাইকচোর সন্দেহে গণপিটুনিতে একজনের মৃত্যু

মাদারীপুরের শিবচরে ইজিবাইকচোর সন্দেহে গণপিটুনিতে মির্জন খালাসী (৪৩) নামের একজনের মৃত্যু হয়েছে। এ সময় গুরুতর আহত হয়েছেন আসমত আলী খান (৪৫) নামের একজন। গতকাল সোমবার দিবাগত রাত সাড়ে তিনটার দিকে উপজেলার বাঁশকান্দি ইউনিয়নের চরছলেনামা এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

নিহত মির্জন খালাসী বাঁশকান্দি ইউনিয়নের সুম্ভুক এলাকার মৃত আবু আলী খালাসীর ছেলে। আহত আসমত আলী খান মাদারীপুর সদর উপজেলার ছিলারচর ইউনিয়নের লক্ষ্মীপুর এলাকার রত্তন খানের ছেলে।

আহত আসমত আলী খানের ভাষ্য, তাঁরা ইজিবাইক চুরির উদ্দেশ্যে চরছলেনামা এলাকায় গেলে তাঁদের গণপিটুনি দেওয়া হয়। পরে তাঁদের পুলিশ উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, গতকাল মধ্যরাতের দিকে সুম্ভুক এলাকার হালিম ফকিরের বাড়িতে পাঁচজনের এক সংঘবদ্ধ দল ইজিবাইক চুরির জন্য যায়। এ সময় বাড়ির লোকজন টের পেয়ে চিৎকার-চেঁচামেচি করলে আশপাশের লোকজন জেগে ওঠে। সংঘবদ্ধ চক্রটি বাড়ির পাশের এক ঝোপের মধ্যে গিয়ে লুকায়। এলাকায় ‘ডাকাত পড়েছে’, এমন খবরে এলাকাবাসী বের হয়ে এসে ধাওয়া করে ওই চক্রের লোকজনকে। এ সময় চক্রের অন্য তিনজন পালিয়ে গেলেও মির্জন ও আসমতকে আটকে পিটুনি দেয় উত্তেজিত জনতা। মির্জন ঘটনাস্থলেই মারা যান। খবর পেয়ে পুলিশ হতাহত ব্যক্তিদের উদ্ধার করে শিবচর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়।

শিবচর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসক মো. মাইনুল ইসলাম বলেন, ভোর সাড়ে পাঁচটার দিকে দুজনকে হাসপাতালে আনে পুলিশ। তাঁদের মধ্যে একজন আগেই মারা যান। অন্যজনকে গুরুতর আহত অবস্থায় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তাঁর চিকিৎসা চলছে।

শিবচর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সুব্রত গোলদার এ খবরের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, ময়নাতদন্তের জন্য লাশ জেলার ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। ঘটনাটি তদন্ত করা হচ্ছে। তদন্ত শেষে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

RELATED ARTICLES

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisment -spot_img

Most Popular

Recent Comments